শনিবার, ২৫ নভেম্বর, ২০১৭ খ্রীষ্টাব্দ | ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
ফ্রান্স বাংলা প্রেস ক্লাবে’র ব্যানারে জামাতের প্রতিবাদ সভা  » «   ফরাসী পতাকার ৩ টি রং এর মানে কি?  » «   Victor Hugo এর সংক্ষিপ্ত জীবনী  » «   পানির উচ্চতা মাপার কাজে নিয়োজিত জুয়াভ  » «   রাইয়াদ আদ্দীন তিশান এর ১ম জন্মদিন উদযাপন  » «   দেশব্যাপী জামায়াতের হরতাল চলছে  » «   শাবি ছাত্রের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার  » «   আজ বিশ্ব মা দিবস  » «   নির্বাচনী সহিংসতায় নিহত ৬  » «   সাংবাদিকদের জন্য নবম ওয়েজ বোর্ড গঠনের আহ্বান রওশনের  » «   সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের নির্বাচন আজ  » «   নির্ঘুম রাতে ডাকাত আতঙ্ক এ ব্যর্থতা কার ?  » «   প্রচারণা শেষ : সিলেটের তিন উপজেলায় ভোটের লড়াই কাল  » «   জামায়াত হরতাল ডাকায় পিছিয়েছে এইচএসসি পরীক্ষা  » «   নিজামীর ফাঁসির রায় বহাল রাখায় সিলেটে আনন্দ মিছিল  » «  

বিপিএল নিয়ে হতাশ নির্বাচক হাবিবুল বাশার

cghস্পোর্টস ডেস্ক :: বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের(বিপিএল) পর্দা নেমেছে। কিন্তু পাওয়া আর না পাওয়ার গল্প বলতে গিয়ে এখনো চলছে আলোচনা। সবচেয়ে ‘বড়’ পাওয়ার আশাটা করেছিলেন নির্বাচকরা। তাদেরই একজন সাবেক অধিনায়ক হাবিবুল বাশার জানালেন, বিপিএলে আবু হায়দার রনি ছাড়া তেমন কিছুই পাননি তারা।
প্রথম দুই আসরের চেয়ে তৃতীয় আসরে ‘ক্রিকেটীয়’ তেমন কিছুই পাননি বলে উল্লেখ করেন নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন।
শীর্ষ একটি ইংরেজি দৈনিককে বলেন, ‘প্রথম দুই টুর্নামেন্টের সঙ্গে তুলনা করলে এবারের বিপিএল ছিলো অনেক গোছানো। কিন্তু নির্বাচকদের চোখ থেকে বলবো, আমরা তেমন কিছুই পাইনি। সবাই জানে, টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে আমাদের এখনো সংগ্রাম করতে হচ্ছে। বিশেষ করে ব্যাটিংয়ে। কিন্তু বিপিএলের ব্যাটিং ছিলো হতাশাজনক। এবং আমরা এখনো এমন কিছু পাইনি যা আমাদেরকে সামনের দুটি বড় টুর্নামেন্টের জন্য ভাবাবে।’
হাবিবুল বাশার সুমনে মতে, মাত্র শেষ হওয়া এবারের বিপিএলে একটাই ট্যালেন্ট উপহার দিয়েছে তাদেরকে, তিনি আবু হায়দার রনি।
এ প্রসঙ্গে বললেন, ‘আমি মনে করি রনি অসাধারণ পারফরম্যান্স করেছিলো। দেখে খুব ভালো লেগেছে যে সে তার সহজাত বোলিং অস্ত্রকে পুঁজি করে দারুণভাবে ফিরেছে। সে ভালো সুইং করাতে পারে। ও অনূর্ধ্ব-১৯ দলে ছিলো। মাঝখানে সাধারণ মাপের বোলারে পরিণত হয়, নৈপুণ্য হারায়। কিন্তু বিপিএলে খুব ভালো বল করেছে এবং নির্বাচকদের চোখে পড়েছে।’
শুধু রনিই নয়, আল-আমিন কিংবা মাশরাফি বিন মুর্তজার নেতৃত্বকেও এগিয়ে রাখছেন তিনি। তারপরেও দিনশেষে টুর্নামেন্টটা রনির ছিলো- এমনটাই বলতে চাইলেন, ‘আল-আমিন হোসেন খুব ভালো কামব্যাক করেছে, মোহাম্মদ শহিদ সবাইকেই অবাক করেছে। মাশরাফির ক্যারিশম্যাটিক নেতৃত্ব আর ভালো বোলিং নজর কেড়েছে সবার। কিন্তু সবকিছু মিলিয়ে বিপিএল ছিলো তরুণ বোলার রনির গল্প,’ যোগ করেন তিনি।
এর আগে প্রধান নির্বাচক ফারুক আহমেদ রনির প্রশংসা করেন। এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি জানিয়েছিলেন, জাতীয় দলের নির্বাচকরা তাকে নিয়ে ভাবছেন।
প্রসঙ্গত, চলতি বিপিএলে শিরোপাজয়ী দল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের হয়ে খেলেন রনি। পুরো টুর্নামেন্ট খেলে সবমিলিয়ে ১২ ম্যাচে ২১ উইকেট তুলে নেন তিনি, যা কিনা বিপিএলের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ।

সর্বশেষ সংবাদ