বৃহস্পতিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ আশ্বিন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

নবীগঞ্জ পৌরসভা কর্তৃক ৩ দিন ব্যাপী বইমেলার উদ্বোধন



হবিগঞ্জ প্রতিনিধি:: মহান একুশে ফেব্রুয়ারি ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষ্যে হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ পৌরসভা কর্তৃক ৩দিন ব্যাপী ‘অমর একুশে বইমেলা শুরু হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার নবীগঞ্জ আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠ প্রাঙ্গনে জাতীয় সংগীত পরিবেশন,জাতীয় পতাকা এবং বইমেলার পতাকা উত্তোলন,শান্তির প্রতীক পায়রা উড়ানোর মধ্য দিয়ে উক্ত বই মেলার উদ্বোধন করা হয়।

পৌরসভা কর্তৃক ৩য় বারের মতো বইমেলার শুভ উদ্বোধন করেন শিশুসাহিত্যিক ও গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব আলী ইমাম। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন হবিগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য গাজী মোহাম্মদ শাহ নওয়াজ মিলাদ। নবীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব ছাবির আহমদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে ও প্যানেল মেয়র-১ এটিএম সালামের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার তৌহিদ বিন হাসান, ইপিআই এন্ড সার্ভিলেন্স এর এক্স ডেপুটি ডিরেক্টর এন্ড প্রোগ্রাম ম্যানেজার ডা. শফিকুর রহমান, নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন,হবিগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য আব্দুল মালিক,উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক কাজী ওবায়দুল কাদেও হেলাল।

এতে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ৯ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও দৈনিক হবিগঞ্জ সময় সম্পাদক মো. আলাউদ্দিন, ৪নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রাণেশ চন্দ্র দেব, কবি এম এ ওয়াহিদ লাভলু প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন প্যানেল মেয়র-৩ ফারজানা আক্তার পারুল, সংরক্ষিত কাউন্সিলর মোছা, রোকেয়া বেগম, ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. কবির মিয়া, ১ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. জাকির হোসেন, ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর জায়েদ চৌধুরী, পৌরসভার সহকারী প্রকৌশলী ভবি মজুমদার, হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা শেখ মো. জালাল উদ্দিন, পৌর সচিব মো. আজম হোসেন, প্রশাসনিক কর্মকর্তা তপন কুমার চন্দ সহ আগত সুধীবৃন্দ। বইমেলার শুভ উদ্বোধন শেষে উদ্বোধকের বক্তব্যকালে শিশুসাহিত্যেক আলী ইমাম বলেছেন- ‘যারা বই পড়ে তারা অন্তত মানুষকে খুন করতে পারে না। বই মানুষের মনে স্বপ্ন দেখায়, আশা আঙ্খাক্ষা জাগিয়ে তুলে। তাই বর্তমানে ফেসবুক থেকে ফেস বাদ দিতে হবে, শুধু বুক থাকবে।’

তিনি ‘মহান একুশে ফেব্রুয়ারি ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা’ দিবস উপলক্ষে নবীগঞ্জ পৌরসভা কর্তৃক বইমেলার আয়োজন করায় মেয়র আলহাজ্ব ছাবির আহমদ চৌধুরীর ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন, ‘ বই প্রেমিক নবীগঞ্জ পৌরসভার মেয়রের পৃষ্ঠপোষকতায় আগামী বছর ৩দিন নয়, ৫দিন বা ৭দিন ব্যাপী বইমেলা অনুষ্ঠিত হবে বলে আমি মনে করি।’ তিনি নবীগঞ্জ পৌরসভার বইমেলা একদিন বাংলা একাডেমির বইমেলার মতো ব্যাপক আকার ধারণ করবে বলে মন্তব্য করেন। তিনি বলেন, ‘পৌর মেয়র ছাবির আহমদ চৌধুরী যে দৃষ্টিনন্দন শহিদ মিনার নির্মাণ করেছেন,তা প্রজন্মের পর প্রজন্ম তাকে স্মরণ করবে।’ উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের অতিথিবৃন্দ কবি আফতাব আল মাহমুদ, কবি পৃথ্বীশ চক্রবর্ত্তী, কবি আবু তাহের চৌধুরী, কবি কাজী হাসান আলী, কবি আব্দুল রকিব হক্কানী, কবি প্রতিমা বনিকসহ ১২জন লেখকের নতুন বই এবং পৌরসভা কর্তৃক বইমেলা স্মারক ‘ফাগুন ‘র মোড়ক উন্মোচন করেন । আলোচনা পর্ব শেষে মেলার স্টলগুলো ঘুরে দেখেন অতিথিবৃন্দ। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের ২য় অধিবেশনে রাত ৯টায় একতারা শিল্পীপরিবারের শিল্পীবৃন্দসহ স্থানীয় শিল্পীরা মনোমুগ্ধকর গান পরিবেশন করেন।