সোমবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বিশ্বের শীর্ষ ৩০ দূষিত শহরের ২২টিই ভারতের



আন্তর্জাতিক ডেস্ক:: বিশ্বের শীর্ষ ৩০টি দূষিত শহরের মধ্যে ২২টিই ভারতের। তবে অন্যতম দূষিত শহরের তালিকা থেকে কিছুটা উন্নতি করেছে চীন। নতুন এক প্রতিবেদন অনুযায়ী, বিশ্বের অন্যতম ১০ দূষিত শহরের মধ্যে সাতটি ভারতের, দুইটি পাকিস্তানের এবং একটি চীনের।

গ্রিনপিস এবং এয়ারভিজ্যুয়ালের সর্বশেষ রিপোর্ট অনুযায়ী, বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত শহর নয়াদিল্লির দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় গুরুগ্রাম শহর। এই শহরটিই সবচেয়ে বেশি দূষণের শিকার হচ্ছে।

গতবছর বায়ুর গড় কোয়ালিটি ইডেক্সের পরিমান ছিল ১৩৫ দশমিক ৮। সুইজারল্যান্ড ও যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক বায়ুদূষণ বিষয়ক কোম্পানি বলছে, ২০১৭ সালের তুলনায় গত বছর গুরুগ্রামের বায়ু দূষণের পরিমাণ কিছুটা কমেছে।

বায়ুতে যেসব ক্ষতিকর উপাদান আছে, তার মধ্যে মানবদেহের জন্য সবচেয়ে মারাত্মক উপাদান হচ্ছে পিএম ২.৫। গত বছরের শেষ দুই মাসে গুরুগ্রামে পিএম-এর পরিমান ছিল দুইশোর বেশি।

india-2

শীর্ষ পাঁচ দূষিত শহরের মধ্যে ভারতের চারটি শহরের পাশাপাশি জায়গা করে নিয়েছে পাকিস্তানের ফয়সালাবাদ। নতুন ওই প্রতিবেদন অনুযায়ী, বায়ু দূষণের কারণে আগামী বছর বিশ্বে প্রায় ৭০ লাখ অকাল মৃত্যুর ঘটনা ঘটবে। এর ফলে অর্থনীতিতে ব্যাপক প্রভাব ফেলবে।

দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার গ্রিনপিসের নির্বাহী পরিচালক ইয়েব সানো বলেন, পরিবেশ দূষণ আমাদের জীবিকা এবং আমাদের ভবিষ্যত কেড়ে নিচ্ছে।

২০১৮ সালে বিশ্বের সবচেয়ে দুষিত ২০টি শহরের মধ্যে লাহোর, দিল্লি এবং ঢাকার স্থান যথাক্রমে ১০, ১১ এবং ১৭।ওই প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০১৭ সালের চেয়ে ২০১৮ সালে চীনে বায়ু দূষণের পরিমান কমেছে ১২ শতাংশ। তবে ২০১৮ সালে বায়ু দূষণে শীর্ষ ১০ দেশের মধ্যে ৮ম অবস্থানে রয়েছে চীনের হোতান শহর।

বায়ু দূষণে চীন উন্নতি করলেও ইন্দোনেশিয়া, দক্ষিণ কোরিয়া, ভিয়েতনাম এবং থাইল্যান্ডসহ চীনের প্রতিবেশী অনেক দেশেই বায়ু দূষণের মাত্রা বেড়েই চলেছে।