মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১ শ্রাবণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

‘দাবাং-থ্রি’র শুটিংয়ের যে ছবির বিতর্কে জড়ালেন সালমান



বিনোদন ডেস্ক:: মধ্যপ্রদেশের ধর্মীয় শহর মহেশ্বরে চলছে বলি ভাইজান সালমান খানের অন্যতম ব্যবসা সফল ছবি ‘দাবাং’য়ের সিকুয়েল ‘দাবাং-থ্রি’-এর শুটিং।

আর ছবিটির শুটিংয়ের বেশ কিছু ছবি ভাইরাল হচ্ছে নেটজগতে। এরই মধ্যে ভাইরাল ছবিগুলোর একটিকে ঘিরে তীব্র বিতর্কের মুখে পড়লেন সালমান।

বিতর্ক গিয়ে ঠেকেছে রাজনীতিতে। দেশটির আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে সেই বিতর্ক জড়িয়ে স্বার্থসিদ্ধিতে নেমেছেন কংগ্রেস ও বিজেপির নেতাকর্মীরা।

অভিযোগ উঠেছে, সালমান খান হিন্দু ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত করছেন।

বিতর্কিত ওই ছবিতে দেখা গেছে, নর্দমার পাশে চলছে ‘দাবাং-থ্রি’ ছবির শুটিং। আর সেখানে একটি কাঠের তক্তার নিচে অযত্নে পড়ে আছে হিন্দু ধর্মের পুজোনীয় শিবলিঙ্গ। সেই তক্তার ওপর দিয়ে চলাফেরা করছেন সেটের কর্মীরা।

ছবিটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শেয়ার করে অনেকে অভিযোগ করেছেন, সালমান খান শিবলিঙ্গ ঢাকা থাকা ওই কাঠের ওপর ওঠে নেচেছেন।

এ বিষয়ে ভোপালের বিজেপি নেতা রামেশ্বর শর্মা বলেছেন, ‘শিবলিঙ্গ অবমাননার দায়ে সালমানের বিরুদ্ধে এফআইআর করা হবে।’

তবে বিষয়টি তেমন গুরুত্বই দেননি কংগ্রেস নেতারা। তারা বলছেন, ‘ধর্মীয় অনুভূতিকে উসকে দিয়ে ইচ্ছাকৃতভাবে রাজনীতি করছে বিজেপি। সালমানের শুটিং সেটে কোনো ধর্ম অবমাননার বিষয় ঘটেনি। ঘটনাটি ছিল অনাকাঙ্ক্ষিত।’

বিতর্কিত সেই ছবিটি

এদিকে এমন বিতর্কচলাকালে দ্রুত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সালমান। তিনি শুটিং সেটে ওই শিবলিঙ্গের ওপর লাগানো কাঠ সরিয়ে ফেলেন।

বিষয়টিকে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখতে অনুরোধ করেন ভক্তদের।

এ বিষয়ে একটি বিবৃতিও দিয়েছেন সালমান।

তিনি বলেন, ‘আপনারা যদি এখানে শুটিং করতে না দেন, ‘তা হলে প্যাকআপ করে চলে যাব। মুখ্যমন্ত্রীর কমলনাথের ইচ্ছাতেই এখানে শুটিং করতে এসেছিলাম। মহেশ্বরকে আমি নিজের বাড়ি বলেই মনে করি। কেননা আমার এক দাদা এই এলাকার পুলিশ অফিসার ছিলেন। আর আমি চুলবুল পাণ্ডে হয়ে নিজের মাঝে তার ছায়া দেখেছি।’

শিবলিঙ্গ বিষয়ে সালমান বলেন, ‘ঘটনাটি অনাকাঙ্ক্ষিত। আমি নিজেই একজন শিবভক্ত। শিবলিঙ্গ অবমাননা করা আমার প্রশ্নই আসেনা।’